স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী অনুষ্ঠান বর্জনের হুমকি মুক্তিযোদ্ধাদের

নীলফামারী প্রতিনিধি
নীলফামারীর ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদকে স্বাধীনতা বিরোধী পরিবারের সন্তান উল্লেখ করে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী অনুষ্ঠানে তার হাতে জাতীয় পতাকা উত্তোলন না করার দাবি জানিয়েছেন মুক্তিযোদ্ধারা।

তোফায়েল আহমেদের হাতে মহান জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হলে আসন্ন স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠান বর্জনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা। মঙ্গলবার (২৩ মার্চ) দুপুরে এই দাবি সম্বলিত একটি স্মারকলিপি প্রথমে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহিনা শবনমকে এবং পরে জেলা প্রশাসকের হাতে তুলে দেন মুক্তিযোদ্ধারা।

স্মারকলিপিতে বলা হয়, তোফায়েল আহমেদ স্বাধীনতা বিরোধী রাজাকার পরিবারের সন্তান। মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় তোফায়েলের পরিবারের অধিকাংশ সদস্য সরাসরি মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছিলো। যার ফলে গত ২০১৯ সালে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে প্রকাশিত রাজাকারের তালিকায় তোফায়েলের বাবা, দাদা ও নানার নাম তালিকাভুক্ত ছিলো। তাই স্বাধীনতা বিরোধী পরিবারের সন্তান তোফায়েল আহমেদ স্বাধীনতা দিবসের অনুষ্ঠানের পতাকা উত্তোলন করলে স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের পক্ষ থেকে অনুষ্ঠান বর্জনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

এসময় ডোমার উপজেলা সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নুরন নবী, সাবেক ডেপুটি কমান্ডার এম.এ. কবির, সাবেক সহকারী কমান্ডার গোলাম রব্বানী ও ফারুক প্রধানসহ অন্যান্য মুক্তিযোদ্ধারা এসময় উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে পতাকা উত্তোলনের জন্য তোফায়েল আহমেদের নাম ঘোষণা করায় সে অনুষ্ঠান বর্জন করেছিলো স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধারা।