ভোলা-চরফ্যাশন আঞ্চলিক মহাসড়কে ‘লাল নিশান’

লালমোহন ভোলা প্রতিনিধি
ভোলা-চরফ্যাশন আঞ্চলিক মহাসড়কের লালমোহন উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন অংশে খানা-খন্দকে সতর্কতামূলক লাল নিশান উড়িয়েছে এলাকার লোকজন। প্রতিদিন এই সড়কে দুর্ঘটনার শিকার হয় যানবাহনের চালক ও যাত্রিরা। দুর্ঘটনা বেড়ে যাওয়ায় মানবিক কারণে এই লাল নিশান উড়ানো হয়েছে বলে জানান স্থানীয় ব্যবসায়ী মহিউদ্দিন মিয়া। তিনি জানান, গত কয়েকেদিনে তার চোখের সামনে অন্তত ৫০টি দুর্ঘটনা ঘটেছে। এতে আহত হয়েছেন বেশ কয়েকজন। তিনি আরো বলেন, গত ৩-৪ বছর ধরে এই খানা-খন্দে জোড়াতালির কাজ করছে ভোলার সড়ক ও জনপদ বিভাগ। জুন এবং ডিসেম্বর এলেই এখানে জোড়াতালির কাজ করে সরকারের অর্থ অপচয় করা হয়। এর স্থায়ী সমাধান হওয়া দরকার।
এলাকার বাসিন্দা সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ও স্থানীয় বাসিন্দা আবুল বাসার সেলিম ও রিয়াজ প্রফেসর জানান, ভোলা সওজের প্রকৌশল বিভাগের দায়িত্বহীনতার কারনে এমন অবস্থা। তারা আরো বলেন, সড়কটির পাশেই লালমোহন পৌরসভার বিরাট আরসিসি ড্রেন রয়েছে। ড্রেন ভরাট করে ব্যক্তি মালিকরা অবকাঠামো করেছে। ভোলার সওজ বিভাগ রাস্তায় জমানো পানি নিস্কাশনের ব্যবস্থা না করে পানির মধ্যেই জোড়াতালির কাজ করছে। এতে অহেতুক সরকারের বিরাট ধরনের অর্থ অপচয় করা হচ্ছে।
ভোলা সরক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী নাজমুল হাসান জানান, এই সড়কটি প্রশস্ত করনের জন্য নতুন করে কাজ চলছে। এখন চাইলেও সংস্কার করা সম্ভব নয়। কাজের গতি ভালো থাকলে এইমনিতেই ঠিক হয়ে যাবে। নতুন করে সংস্কারের জন্য প্রয়োজন হবে না।